সম্পূর্ণ ভার্চুয়াল মাধ্যমে ১৩তম 'এপিজে কলকাতা লিটারারি ফেস্টিভ্যাল' শুরু হচ্ছে ২১শে জানুয়ারি - Songoti

সম্পূর্ণ ভার্চুয়াল মাধ্যমে ১৩তম 'এপিজে কলকাতা লিটারারি ফেস্টিভ্যাল' শুরু হচ্ছে ২১শে জানুয়ারি

Share This


কলকাতা: অক্সফোর্ড বুকস্টোরের তরফ থেকে আজ ঘোষিত হল বহু প্রতীক্ষিত ১৩তম 'এপিজে কলকাতা লিটারারি ফেস্টিভ্যাল যা শুরু হচ্ছে ২১শে জানুয়ারি থেকে এবং চলবে ২৩শে জানুয়ারি পর্যন্ত সম্পূর্ণ ভার্চুয়াল মাধ্যমে। এপিজে কলকাতা লিটারারি ফেস্টিভ্যাল ২০২২-এ ঐতিহাসিক অক্সফোর্ড বুকস্টোরের শতবর্ষ উদযাপনের সূচনাও করা হবে। প্রখ্যাত লেখক, সাংবাদিক, চিন্তাবিদ, কবি, আন্তর্জাতিক লেখক এবং বলিউড অভিনেতাদের অনেকেই উপস্থিত থাকবেন এবছরের তিনদিনব্যাপী উৎসবে। বিভিন্ন লাইভ এবং কথোপকথনের অনুষ্ঠানের মাধ্যমে এবছর আলোচনা করা হবে সাহিত্য, কবিতা, রাজনীতি, মানসিক ও শারীরিক স্বাস্থ্য, গ্যাস্ট্রোনমি, বিভিন্ন প্রাসঙ্গিক ঘটনা, পিতৃত্ব, অনুবাদ, ইতিহাস, শিশু এবং প্রাপ্তবয়স্কদের সাহিত্যে পর্যন্ত।

একেএলএফ-এর ১৩তম সংস্করণ ৫০-এরও বেশি দেশ-বিদেশের প্রখ্যাত ব্যক্তিদের স্বাগত জানাবে। তাদের মধ্যে উল্লেখযোগ্য কিছু নাম হল, পুরস্কারপ্রাপ্ত লেখক উইলিয়াম ডালরিম্পল; পুরস্কারপ্রাপ্ত শিশুসাহিত্য লেখক এনডি গ্রিফিথস; একাধারে কবি, সাহিত্যিক এবং সাংবাদিক, জিৎ থাইল; লেখক ও চলচ্চিত্র নির্মাতা বন্দনা কোহলি; লেখক, বক্তা এবং পুরাণবিদ দেবদূত পট্টনায়ক; সাহিত্যিক শোভা দে; ফরাসি কূটনীতিক, ইমানুয়েল লেব্রুন-ডেমিয়েন্স এবং ড. ক্রিস্টিন কর্নেট; লেখক, সাংবাদিক এবং চলচ্চিত্র সমালোচক, অনুপমা চোপড়া; সাংবাদিক, লেখক এবং কলামনিস্ট, সীমা গোস্বামী; চলচ্চিত্র পরিচালক, চিত্রনাট্যকার এবং অভিনেতা, অপর্ণা সেন; বিখ্যাত সাংবাদিক এবং টিভি উপস্থাপক, বীর সাংভি; লেখক, ড. কল্যাণ রায়; কবীর বেদী, তুষার কাপুর, যুগল হংসরাজের মতো বলিউডের বিখ্যাত অভিনেতারা; কবি, সাংবাদিক এবং নৃত্যশিল্পী, তিশানি দোশি; বিশিষ্ট সাংবাদিক ও লেখক, সাগরিকা ঘোষ, নন্দিনী সেনগুপ্ত, নীলাঞ্জনা এস. রায়, সম্রাট চৌধুরী, সন্দীপ রায়; সাংবাদিক, এবং ব্লগার, সৌরিশ ভট্টাচার্য; সেলিব্রিটি শেফ, সঞ্জীব কাপুর এবং বিকাশ খান্না; প্রবীণ ভারতীয় থিয়েটার অভিনেত্রী, ডলি ঠাকুর; টেরি কোল, শান্তনু গুহ রায়, সৈকত মজুমদার, করুণা এজরা পারিখ, সুদীপ চক্রবর্তী, ভিভান মারওয়াহার মতো প্রখ্যাত লেখক; সেলিব্রিটি পারফর্মার এবং বিশিষ্ট রেডিও জকি, মীর আফসর আলী; চলচ্চিত্র পরিচালক, রাহুল রাওয়াইল; অনুবাদক, অরুণাভ সিনহা; ফরাসি ঔপন্যাসিক, সাংবাদিক এবং ইতিহাসবিদ, আইরিন ফ্রেইন ; বিশ্বব্যাপী সামগ্রিক স্বাস্থ্য গুরু, ডাঃ মিকি মেহতা; সুপরিচিত ফুড ব্লগার, ইন্দ্রজিৎ লাহিড়ী প্রমুখ।

বিভিন্ন সেশনের পাশাপাশি, ফেস্টিভ্যালের ত্রয়োদশ সংস্করণে অক্সফোর্ড বুকস্টোর বুক কভার পুরস্কারের সপ্তম সংস্করণের সংক্ষিপ্ত তালিকার ঘোষণাও করবেন  যথাক্রমে ড. অলকা পান্ডে, ড. শশী থারুর, প্রীতি পল, শোভা দে, কুণাল বসু এবং অতিথি জুরি, ইমানুয়েল লেব্রুন-ডেমিয়েন্স। একেএলএফ ২০২২ এবছর লাইভ প্রদর্শন করা হবে অক্সফোর্ড বুকস্টোর এবং এপিজে কলকাতা লিটারারি ফেস্টিভ্যাল-এর অফিসিয়াল ফেসবুক এবং ইউটিউব পেজে। একেএলএফ-এর ১৩তম সংস্করণের বিষয়ে এপিজে সুরেন্দ্র গ্রুপ এবং অক্সফোর্ড বুকস্টোরস-এর ডিরেক্টর, প্রীতি পল জানান, “মহামারী-পরবর্তী বিশ্বকে আরও সুন্দর করে তোলার জন্য এটাই সেরা সময় যখন আমরা অতীত থেকে শিক্ষা নিয়ে এগিয়ে যেতে পারি নতুন আশা মনে নিয়ে ভবিষ্যতের জন্য। অক্সফোর্ড বুকস্টোর এবং এপিজে কলকাতা লিটারারি ফেস্টিভ্যাল গত বছর থেকেই ডিজিটাল মাধ্যমকে বিভিন্ন কাজের ক্ষেত্রে নিপুণভাবে ব্যবহার করেছে নতুন প্রজেক্ট থেকে শুরু করে আরও বিভিন্ন পরিকল্পনা রূপায়ণের জন্য। আমরা বিশ্বাস করি সবাইকে একসূত্রে বেঁধে রাখতে পারে একমাত্র বই তথা সাহিত্য। সাহিত্য এবং বই-এর স্থান আসল এবং ভার্চুয়াল জগতে আরও সমৃদ্ধ হবে বলেই আশা রাখি এবং ১৩তম এপিজে কলকাতা লিটারারি ফেস্টিভ্যাল যা প্রথমবার সম্পূর্ণরূপে ভার্চুয়ালি প্রদর্শন হবে, বিশেষত অক্সফোর্ড বুকস্টোরের ঐতিহ্যের শতবর্ষ পূরণের উদযাপনের সূচনা করবে।"

এপিজে কলকাতা লিটারারি ফেস্টিভ্যাল এবং অক্সফোর্ড বুকস্টোর-এর ডিরেক্টর ময়না ভগত বলেন, "এপিজে কলকাতা লিটারারি ফেস্টিভ্যাল-এর ১৩তম সংস্করণ আমাদের দ্রুত পরিবর্তিত দুনিয়া এবং আগামী বছরে যেসমস্ত পরিবর্তন অবশ্যম্ভাবী তার ওপর দৃষ্টি নিক্ষেপ করবে। বিভিন্ন টাইমজোনে অবস্থিত আমন্ত্রিত ব্যক্তিদের একসূত্রে আনার জন্য আমরা যে পরিকল্পনামাফিক কাজ করেছি তাতে ডিজিটাল মাধ্যমে হলেও এই ফেস্টিভ্যালের ওপর কোনো প্রভাব না পড়তে না দেওয়ার সম্ভানাই প্রবল। প্রতিটি সেশন এমনভাবে পরিকল্পনা করা হয়েছে যেগুলি তথ্য-সমৃদ্ধ এবং শ্রোতাদের মনোরঞ্জনও করবে। পাশাপাশি অক্সফোর্ড বুকস্টোরের শতবর্ষ উদযাপনেরও এটি এক অবিচ্ছেদ্য অংশ।"

No comments:

Post a Comment

Pages