Kolkata International Film Festival: কোভিড পরিস্থিতিকে মাথায় রেখে ২৭তম আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্র উৎসব উদ্বোধন হবে ভার্চুয়ালি - Songoti

Kolkata International Film Festival: কোভিড পরিস্থিতিকে মাথায় রেখে ২৭তম আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্র উৎসব উদ্বোধন হবে ভার্চুয়ালি

Share This

পায়েল পাল, কলকাতাঃ ২৭তম কলকাতা আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্র উৎসব। সব রকম কোভিড বিধি মেনেই আয়োজন করা হচ্ছে এই উৎসবের। ৭ই জানুয়ারি নবান্ন সভাগৃহ থেকে বিকেল ৪টের সময় ভার্চুয়ালি উদ্বোধন করা হবে এই উৎসব, উদ্বোধন করবেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। ৮ দিন ব্যাপী ১০টি প্রেক্ষাগৃহে প্রদর্শিত হবে ভারতসহ ৪২টি দেশের

 ১৬১টি ছবি। এবছরের ফোকাল কান্ট্রি ফিনল্যান্ড। মোট ১৬১টি ছবির জন্য ২০০টি শো আয়োজন করা হয়েছে। কোভিড বিধি মেনে সিনেমা হলে ৫০ শতাংশ লোক নিয়ে চলবে চলচ্চিত্র উৎসব। এবছরের উদ্বোধনী ছবি সত্যজিৎ রায়ের 'অরণ্যের দিনরাত্রি'।


এবছর শতবর্ষের শ্রদ্ধাঞ্জলি দেওয়া হবে সত্যজিৎ রায়, চিদানন্দ দাশগুপ্ত ও হাঙ্গেরীয়ন ফিল্মমেকার মিকলোস ইয়াঞ্চকে। সত্যজিৎ রায়ের তৈরি ছবিও প্রদর্শিত হতে চলেছে এই চলচ্চিত্র উৎসবে। সেই তালিকায় রয়েছে পথের পাঁচালী, পরশপাথর, নায়ক, শতরঞ্জ কি খিলাড়ি, হীরক রাজার দেশে, সোনার কেল্লা, শ্যাম বেনেগাল তৈরি সত্যজিৎ রায় নামক ডকুমেন্টারি সহ বেশ কয়েকটি ছবি। প্রদর্শিত হবে চিদানন্দ দাশগুপ্তের ছবি পোর্টেট অফ দ্য সিটি ও আমোদিনী। এছাড়াও রয়েছে  ইয়াঞ্চর সবচেয়ে বিখ্যাত ছবি 'ইলেক্ট্রা মাই লাভ'। এবছর সত্যজিৎ রায় মেমোরিয়াল লেকচার পরিবেশন করবেন পরিচালক সুজিত সরকার, যা ১১ই জানুয়ারি বিকেল ৩টে শিশির মঞ্চে অনুষ্ঠিত হবে। বিশেষ শ্রদ্ধা জানানো হবে পরিচালক বুদ্ধদেব দাশগুপ্ত, দিলীপ কুমার, জাঁ পল বেলমন্ডো, জাঁ ক্লদ ক্যারিরি, স্বাতীলেখা সেনগুপ্ত ও সুমিত্রা ভাবেকে। ৮ দিনব্যাপী প্রদর্শিত হবে তাদের একাধিক ছবি।

উত্তরা আনওয়ার কি আজব কিস্সা মুঘল-ই-আজম, মধুমতী, সগিনা মাহাতো, মহাভারত, ধর্মযুদ্ধ, দিথি সহ একাধিক ছবির মাধ্যমে কিংবদন্তিদের শ্রদ্ধাঞ্জলি জানানো হবে। এছাড়াও সংবর্ধনা দেওয়া হবে সত্যজিৎ রায়ের শিল্পীদের। সত্যজিৎ রায়ের সঙ্গে ছবি করেছেন এমন ২৭ জন শিল্পীকে আমন্ত্রণ পাঠানো হয়েছে, আগামী ৮ তারিখ রবীন্দ্রসদনে তাদের সম্মাননা জানানো হবে সত্যজিতের শিল্পী হিসাবে। প্রতি বছরের মতো বেস্ট ফ্লিম, বেস্ট ডিরেক্টর, বেস্ট শর্ট ফ্লিম, বেস্ট বকুমেন্ট্রি ফ্লিম  এর জন্য রয়েল বেঙ্গল গোল্ডেন টাইগার অ্যাওয়ার্ড এবং ক্যাশ পুরস্কার (যা বিশ্বের প্রতিটি প্রতিযোগীতার থেকে সর্বাধিক) দেওয়া হবে। এছাড়াও জাতীয় পর্যায় প্রতিযোগীতায় বেস্ট ফ্লিম, বেস্ট ডিরেক্টর দেওয়া হবে হীরালাল সেন মেমোরিয়াল ট্রোফি এবং ক্যাশ পুরস্কার।  ১৪ই জানুয়ারি উৎসবের সমাপ্তি ঘোষণা হবে।। 

No comments:

Post a Comment

Pages